৯ দফা দাবিতে নোবিপ্রবির উপাচার্য অবরুদ্ধ

Jagoran- NSTU, Vice-Chancellor, Blocked
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: নয় দফা দাবিতে নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে অবরুদ্ধ করেছেন শিক্ষার্থীরা। উপাচার্য তার দপ্তরে প্রবেশ করার পরপরই উপাচার্যের দপ্তরসহ বিভিন্ন প্রশাসনিক দপ্তরে তালা দেয় শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (৯ আগস্ট) সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত শিক্ষার্থীরা উপাচার্যকে অবরুদ্ধ করে রাখেন।

গত ৭ আগস্ট একই দাবিতে প্রশাসনিক ও একাডেমিকসহ সকল ভবনে তালা দেয়া হয়েছিল। শিক্ষার্থীবান্ধব প্রশাসন ও ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য শতভাগ আবাসিক সুবিধা নিশ্চিতকরণসহ নয় দফা দাবিতে প্রশাসনিক ও একাডেমিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে বিক্ষোভ পালন করেছিল শিক্ষার্থীরা।

শিক্ষার্থীদের নয় দফা দাবিগুলো হলো- আবাসিক সমস্যার স্থায়ী সমাধান, ২৪ ঘন্টা চিকিৎসা সেবা প্রদান, পূর্বের ব্যাকলগ প্রথা পুনর্বহাল, মানোন্নয়ন পরীক্ষার ন্যুনতম জিপিএ ২.৫ করা, ব্যাকলগ ও ইমপ্রুভমেন্ট পরীক্ষার ফি (প্রবেশপত্রসহ) ৩০০ টাকা করা, বিএনসিসি ও রোভার স্কাউটের জন্য বাৎসরিক ফি বাতিল করা, স্নাতকের সকল ক্রেডিট পূরণের জন্য ১৪ সেমিস্টার সুযোগ দেয়া, অসুস্থ শিক্ষার্থীদের জন্য সিক বেডে পরীক্ষা দেয়ার ব্যবস্থা করা এবং আবাসিক হলের ডাইনিংয়ে ভর্তুকি প্রদান করা।

বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সভাপতি আবদুল্যাহ্ আল মামুন জানান, শিক্ষার্থীরা তাদের নয় দফা দাবিতে গত ৭ আগস্ট ও আজ উপাচার্য এর কার্যালয় ঘেরাও করে।

শিক্ষার্থীদের আন্দোলন সম্পর্কে নোবিপ্রবি শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পদক এস এম ধ্রুব জানান, আমরা শিক্ষার্থীদের দাবির সঙ্গে একাত্মতা পোষণ করেছি। তাদের যেকোনো যৌক্তিক দাবিতে আমরা তাদের পাশে আছি। আলোচনার মাধ্যমে এসব সমস্যার সমাধান করতে আমরা এখন উপাচার্যসহ বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের সঙ্গে বৈঠক করছি।

ad