ফাঁস হওয়া প্রশ্ন পেয়েছে ৫ হাজারের মতো পরীক্ষার্থী: শিক্ষামন্ত্রী

Nurul islam nahid
ad

জাগরণ ডেস্ক: এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় কোনো পরীক্ষা বাতিল হবে না বলে জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেছেন, পরীক্ষার আগে ফাঁস হওয়া এমসিকিউ প্রশ্ন পেয়েছে পাঁচ হাজারের মতো পরীক্ষার্থী। তাই মুষ্টিমেয় কয়েকজন শিক্ষার্থীর কারণে পরীক্ষা বাতিল করা হবে না।

বৃহস্পতিবার (৩ মে) সচিবালয়ে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে এসএসসি পরীক্ষায় প্রশ্নফাঁসের অভিযোগ যাচাই-বাছাই কমিটির প্রতিবেদন আনুষ্ঠানিকভাবে উপস্থাপন করে তিনি এ কথা জানান।

প্রতিবেদনের তথ্য ও সুপারিশ তুলে ধরে শিক্ষামন্ত্রী জানান, সৃজনশীল (সিকিউ) পরীক্ষার কোনো প্রশ্ন ফাঁস হয়নি। আর নৈর্ব্যত্তিক (এমসিকিউ) প্রশ্ন ফাঁস হয়েছে ১৭টি বিষয়ের মধ্যে ১২টি বিষয়ের শুধু ‘খ’ সেটের। আর তা হয়েছে পরীক্ষার ২০ মিনিট সময় আগে।

শিক্ষামন্ত্রী জানান, ২০ লাখের বেশি পরীক্ষার্থীর মধ্যে মাত্র শূন্য দশমিক ২৫ শতাংশ অর্থাৎ পাঁচ হাজার পরীক্ষার্থী Question leak, evidence, inquiry committee,সুবিধাভোগী। এরমধ্যে অনেকেই আটক ও বহিষ্কার হয়েছে এবং ব্যবস্থার আওতায় রয়েছে। তাই কোনো পরীক্ষা বাতিল করার প্রয়োজন নেই।

নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, এসএসসি পরীক্ষায় ১৭টি বিষয়ের মধ্যে ১২টি বিষয়ে শুধু নৈর্ব্যত্তিক (এমসিকিউ) অংশের ৩০ নম্বরের চারটি সেটের একটি (‘খ’ সেট) ফাঁস হয়েছে। কোনো সৃজনশীল (সিকিউ) অংশের ৭০ নম্বরের প্রশ্ন ফাঁস হয়নি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক ক্লোজ গ্রুপে নগণ্য সংখ্যক ছাত্রছাত্রী ফাঁস করা প্রশ্ন পেয়েছে। বেশি সংখ্যক পরীক্ষার্থী ফাঁস করা প্রশ্ন পায়নি।

তিনি বলেন, পরীক্ষার্থীরা প্রশ্ন পেয়েছে ২০ মিনিট বা তার কাছাকাছি সময়। এ ধরনের ক্লোজ গ্রুপের সংখ্যাও অতি নগণ্য। একেকটি গ্রুপে ১০ থেকে ১০০ জনের মতো সদস্য রয়েছে। এরকম ৪০ থেকে ৫০টি গ্রুপ প্রশ্ন শেয়ার করেছে। এর মাধ্যমে চার থেকে পাঁচ হাজার শিক্ষার্থী পরীক্ষার কিছু সময় আগে প্রশ্ন পেয়ে থাকতে পারে।

শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট আগে সব পরীক্ষার্থীর কক্ষে প্রবেশ বাধ্যতামূলক করায় এত কম সময়ের মধ্যে ৩০টি নৈর্ব্যক্তিক প্রশ্ন খুঁজে বের করা সহজ নয়। এতে সামগ্রিক ফলে খুব বেশি প্রভাব পড়বে না। অনেকে বিচার বিশ্লেষণ না করেই ঢালাওভাবে প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগ করে শিক্ষা মন্ত্রণালয়কে অপরাধী বানিয়েছেন। এটি আমাদের জন্য অবিচার কারা হয়েছে।

ad