শিক্ষার্থীদের ওপর পুলিশের হামলা, সাথে বহিরাগতরা

Jagoran- Students, police-AL-Jubo League-BCL, attacks,
ad

জাগরণ ডেস্ক: রাজধানীর মিরপুরে নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর পুলিশ হামলা চালিয়েছে। এ সময় পুলিশের সাথে লাঠি হাতে বহিরাগতদেরও দেখা গেছে। অভিযোগ রয়েছে ওই বহিরাগতরা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতা-কর্মী।

বৃহস্পতিবার (২ আগস্ট) বিকাল পৌনে ৫টার দিকে মিরপুর পুলিশ স্টাফ কলেজের সামনে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর এই হামলা চালানো হয়।

পুলিশের গাড়িতে ভাঙচুর চালানোর অভিযোগে শিক্ষার্থীদের বেশ কয়েকজনকে মারধরও করে পুলিশ সদস্যরা। একদল যুবককেও লাঠি হাতে শিক্ষার্থীদের ওপর চড়াও হতে দেখা গেছে। মিরপুর-১৩ ও ১৪ নম্বরের মধ্যে বিআরটিএ থেকে কাফরুল থানা হয়ে পাবলিক অর্ডার ম্যানেজমেন্টের গেইট পর্যন্ত সড়কে এই ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া চলে।

নাম প্রকাশ না করে এক শিক্ষার্থী বলেন, আমরা শান্তিপূর্ণ মানবন্ধন করছিলাম। পুলিশ হঠাৎ এসে আমাদের লাঠিপেটা শুরু করেছে।

জেবা নূর নামে এক অভিভাবক তাতক্ষণিক ঘটনায় ফেসবুক লাইভে বলেন, আমাদের কোমলমতি বাচ্চারা শান্তিপূর্ণ আন্দোলন করছিল। সকাল থেকেই তারা না খেয়ে আন্দোলনে। আমরা কয়েকজন খোঁজ নিতে আসছিলাম। কিন্তু হঠাৎ করে হামলা চালানো হয়। ধাওয়া করা হয়। মেয়ে শিক্ষার্থীদের ওপর হাত তোলা হয়। ছাত্র-ছাত্রীদের মারধর করা হয়। কোনো ঝামেলা ছিল না। বাচ্চাদের আমরা জাস্টিস এনে দিতে পারলাম না।

উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা জানান, যারা আন্দোলন করছে তাদের ভেতর বহিরাগতরা মিশে গেছে। ওই কুচক্রি অংশটিই টার্গেট করে পুলিশের গাড়িতে ভাঙচুর চালাচ্ছে। যে কারণে আমরা ওই অংশটিকে ধাওয়া করেছি।

তবে পুলিশের সাথে বহিরাগতরা কারা সে প্রশ্ন করা হলে তারা বিষয়টি এড়িয়ে যান।

ad