এ কেমন বর্বরতা?

Rape victim
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: নেত্রকোনার কেন্দুয়ায় এক গৃহবধূকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে ধর্ষণ করা হয়েছে। ধর্ষণ শেষে ধর্ষক নাজমুল (২৪) গৃহবধূর গোপনাঙ্গ ব্লেড দিয়ে কেটে দিয়েছে। গুরুতর অবস্থায় তাকে কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

রবিবার (১৩ মে) রাতে উপজেলার পাইকুড়া ইউনিয়নের সুত্রাকান্দা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ধর্ষক নাজমুল কেন্দুয়া উপজেলার সুত্রাকান্দা গ্রামের মৌজ আলীর ছেলে। ঘটনার পর থেকে সে পলাতক রয়েছে।

জানা যায়, নাজমুল কয়েক মাস যাবত ওই গৃহবধূকে কু-প্রস্তাব দিয়ে আসছিল। এতে রাজি না হওয়ায় তাকে হুমকি দিয়ে আসছিল নাজমুল। রবিবার সন্ধ্যায় বাড়ির পেছনে কাজ করছিল ওই গৃহবধূ। এ সময় নাজমুল পেছন থেকে এসে তার মুখ-চেপে ধরে হাত-পা বেঁধে পাশের একটি জঙ্গলে নিয়ে যায়। সেখানে নিয়ে তাকে লাগাতার ধর্ষণ করে নাজমুল।

ধর্ষণ শেষে গৃহবধূর গোপনাঙ্গ ব্লেড দিয়ে কেটে দিয়ে পালিয়ে যায় সে। পরে তার চিৎকারে লোকজন ছুটে এসে তাকে উদ্ধার করে কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

কেন্দুয়া থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইমারত হোসেন গাজী বলেন, মামলা হয়েছে। বিষয়টি আসামীকে ধরতে পুলিশি অভিযান শুরু হয়েছে।

ad