শিক্ষার্থীদের মিছিলে ‘শিবির কর্মী’

Shibir
ad

জাগরণ ডেস্ক: বাস চাপায় দুই শিক্ষার্থী নিহত হওয়ার ঘটনার প্রতিবাদে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের আন্দোলনকে ভিন্নখাতে নেয়ার জন্য একটি অশুভ শক্তি কাজ করে যাচ্ছে। গত কয়েকদিনের আন্দোলনের বিভিন্ন ভিডিও ফুটেজ দেখে এ তথ্য নিশ্চিত হয়েছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, আন্দোলনে নিয়ে সোচ্চার হয়ে কথা বলছেন আব্বাস উদ্দিন। যিনি শিবির কর্মী। তার গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রামের সাতকানিয়ায়। অথচ বর্তমানে তিনি ঢাকায় এসে শিক্ষার্থীদের আন্দোলন পরিচালনা করছেন। এ সময় আব্বাস উদ্দিনের সঙ্গে তার সহযোগী মোহাম্মদ সাত্তারকেও দেখা যায়। তিনিও চট্টগ্রাম সাতকানিয়ার শিবির কর্মী।

এছাড়া অপর একটি ভিডিও ফুটেজে আইনশৃঙ্খলাবাহিনীর যাচাই বাছাই চালানোর সময়ে একজন ইয়াবাসেবী সাত মামলার আসামীকে খুঁজে পান। যার নাম রমিজ উদ্দিন পাটোয়ারি।

বাড্ডা থানা পুলিশের এক কর্মকর্তা বলেন, বর্তমান অবস্থাকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত হবার সম্ভাবনা রয়েছে বিধায় আমরা ভিডিও ফুটেজ যাচাই বাছাই শুরু করি। এ সময় আমাদের হাতে আসে এমন কিছু নাম যারা সরাসরি শিবিরের নানা কর্মকাণ্ডের সঙ্গে ওতপ্রোতভাবে জড়িত। এ সময় আমরা হাফিজ মাহমুদ নামে এমন এক শিবির কর্মীকে খুঁজে পাই। হাফিজ উদ্দিন অন্যান্য ছাত্র-ছাত্রীদের কথা বলার জন্য উষ্কিয়ে দিচ্ছে।

এ প্রসঙ্গে ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন বলেন, ছাত্রদের একটি শিক্ষনীয় আন্দোলনকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করে দেশের অভ্যন্তরে আরজকতা সৃষ্টির চেষ্টা চালাচ্ছে জামায়াত ও বিএনপি। নিজেরা আন্দোলন করতে না পেরে সাধারণ ছাত্রদের আন্দোলনকে নিজেদের করার ব্যর্থ চেষ্টা চালাচ্ছেন তারা। এসব জনগণ কখনোই মেনে নিবে না।

উক্ত ছবিগুলোর ব্যপারে উল্লেখযোগ্য ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানিয়ে বাড্ডা থানার ওসি বলেন, ছাত্রদের আন্দোলনের ভেতরে যে সব জামায়াত শিবির কর্মী আছে তাদের আমরা চিহ্নিত করতে স্বক্ষম হয়েছি। উক্ত জামায়াত শিবির কর্মীদের সবাইকে আইনের আওতায় এনে শিগগিরই ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ad