আমতলীতে চাঁদা দাবি করায় ইউপি সদস্যের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন

Amtali, fund, UP member, press conference,
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: বরগুনার আমতলীতে বাড়ি নির্মাণে চাওড়া ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য জয়নাল আবেদীন চাঁদা দাবি করেছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

মঙ্গলবার (২২ মে) সকালে আমতলী রিপোর্টার্স ইউনিটিতে সংবাদ সম্মেলনে সাবেক ইউপি সদস্য আলতাফ হোসেন হাওলাদার এ অভিযোগ করেছেন।

লিখিত বক্তব্যে আলতাফ হোসেন হাওলাদার বলেন, ১৯৮১ সালে উপজেলার চাওড়া ইউনিয়নের পাতাকাটা গ্রামের হাফেজ আলী মাতুব্বরের নিকট থেকে পাতাকাটা মৌজায় ১৫৫নং খতিয়ানের ২২৭৫ দাগে ১২ শতাংশ ও ২৩০৭ দাগে ৩০ শতাংশ জমি ক্রয় করি। গত ৩৮ বছর ধরে ওই জমি আমি ভোগ-দখল করে আসছি। গত বছরের ডিসেম্বর মাসে এ জমি থেকে আমার মেয়ে মাহমুদা হ্যাপিকে ১২ শতাংশ জমি দলিলমূলে দান করি।

তিনি বলেন, এ বছর এপ্রিল মাসে ওই জমিতে আমার মেয়ে মাহমুদা হ্যাপি বাড়ি নির্মাণ করতে গেল ইউপি সদস্য মো. জয়নুল আবেদীন তার সহযোগী নজরুল ইসলাম মাতুব্বর, নুরুল ইসলাম মাতুব্বর, গফফার মাতুব্বর, ওমর মাতুব্বর, জালাল মাতুব্বর, রহিম মাতুব্বর ও আনিস মাতুব্বর বাধা দেয়।

পরে ইউপি সদস্য জয়নাল আবেদীন ও তার সহযোগিরা বাড়ি নির্মাণ করার জন্য আমার কাছে ১ লাখ ২০ হাজার টাকা চাঁদা দাবি করে। আমি তাদের দাবিকৃত টাকা দিতে অস্বীকার করায় আমার মেয়েকে বাড়ি নির্মাণ করতে দেয়নি।

লিখিত বক্তব্যে তিনি আরও বলেন, ইউপি সদস্য ও তার সহযোগিদের চাঁদা দাবির বিষয়টি আমতলী থানায় জানালে ইউপি সদস্য ও তার লোকজন আমাকে ও আমার পরিবারের লোকজনকে জীবন নাশ ও মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানি করার হুমকি দিচ্ছে।

ইউপি সদস্য মো. জয়নাল আবেদীন চাঁদা দাবির কথা অস্বীকার করে বলেন, আমাকে হেয় প্রতিপন্ন করার জন্য মিথ্যা অভিযোগ করা হয়েছে।

আমতলী থানার ওসি (তদন্ত) মো. নুরুল ইসলাম বাদল বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ad