গুরুদাসপুরে যৌতুক না পেয়ে স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা

নাটোর
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: নাটোরের গুরুদাসপুরে যৌতুক না পেয়ে রিনা খাতুন (২৮) নামে এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে।এ ঘটনায় নিহতের স্বামী রনি সরদারকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

শনিবার (১৫ সেপ্টেম্বর) সকালে উপজেলার নাজিরপুর ইউনিয়নের পুরুলিয়া  গ্রামে ওই ঘটনা ঘটেছে।

পরে রাতেই নিহত রিনার বাবা মফিজ উদ্দিন বাদী হয়ে রিনার স্বামী রনি সরদার (২৮), তার বাবা হাবিল সরদার (৬০) ও মা ছামিনা বেগমসহ (৫০) পাঁচজনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে প্রধান আসামী রনি সরদারকে রবিবার দুপুরে নাজিরপুর ইউনিয়নের পুরুলিয়া গ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করে।

মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়, ছয় বছর আগে রনি ও রিনার বিয়ে হয়। রাব্বী (৩) নামে তাদের এক সন্তানও রয়েছে। রিনার বিয়ের সময় যৌতুক বাবাদ নগদ ১ লাখ টাকাসহ ও আসবাবপত্র দেওয়া হয়েছিল।

কিন্তু আরো ২ লাখ টাকার যৌতুকের দাবি করে রিনাকে বিভিন্ন সময় শারীরিক নির্যাতন করে আসছিল রনি। সর্বশেষ গতকাল শনিবার রনি তার পরিবারের অন্য সদস্যদের প্ররোচণায় রিনাকে নির্যাতন করে। এক পার্যায়ে রনি সরদার রিনাকে বটি দিয়ে কুপিয়ে জখম করে।

পরে তাকে নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে নেওয়া হয়। সন্ধ্যার পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় রিনা বেগম মারা যায়।

গুরুদাসপুর থানার পরিদর্শক মো. আনারুল ইসলাম বলেন, প্রধান আসামীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে এবং অন্যান্য আসামীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

ad