দরজা খুলতে দেরি, স্ত্রীর পায়ের রগ কেটে দিল স্বামী

Lalmonirhat house
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: লালমনিরহাটের আদিতমারীতে ঘরের দরজা খুলতে দেরি হওয়ায় শরিফা বেগম নামে এক গৃহবধূর পায়ের রগ কেটে দিয়েছে তার স্বামী। এ ঘটনায় ঘাতক স্বামী আব্দুল কাদেরকে (৩৮) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

সোমবার (১৪ মে) দুপুরে আদালতের মাধ্যমে তাকে জেলহাজতে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

কাদের উপজেলার সুরুজ আলীর ছেলে। শরিফা বেগম মহিষখোচা ইউনিয়নের বারঘড়িয়া গ্রামের সফিয়ার রহমানের মেয়ে।

শরিফার বাবা সফিয়ার রহমান জানান, প্রায় ১০ বছর আগে আমার মেয়ে শরিফার সাথে বিয়ে হয় কাদেরর। বিয়ের পর থেকে কারণে অকারণে শরিফাকে মারতো জামাই কাদের। শনিবার রাতে ঘরের দরজা খুলতে দেরি হওয়ায় কাদের শরিফাকে মারধর করে মাছ কাটা বটি দিয়ে বাম পায়ের রগ কেটে দেয়। খবর পেয়ে আমি তাকে আনতে গেলে সে আমাকেও মারতে আসে।

তিনি বলেন, পরে আমি থানায় গিয়ে বিষয়টি জানালে পুলিশ শরিফাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে প্রথমে আদিতমারী হাসপাতাল ও পরে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন।

এ বিষয়ে আদিতমারী থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাসুদ রানা এ ঘটনায় তার স্বামী কাদেরকে গ্রেপ্তার করে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ad