নওগাঁয় সরকারি ঘর বরাদ্দে লাখ লাখ টাকা হাতানোর অভিযোগ

নওগাঁ
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: নওগাঁয় সরকারিভাবে সমাজের অসহায় ও গৃহহীনদেন ঘর বরাদ্দের কথা বলে লাখ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে। 

জেলার ধামইরহাট উপজেলার ৪নং উমার ইউনিয়নের কৈগ্রাম হঠাৎ পাড়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

ওই গ্রামের অনেকেই অভিযোগে জানান, সম্প্রতি ৪নং উমার ইউনিয়নের কয়েকজন সদস্যসহ দায়িত্বশীল ব্যক্তি প্রচার করতে থাকেন, সরকারিভাবে অসহায় গরীব ও গৃহহীনদের দুইটি করে আধা পাকা ঘর তৈরি করে দেয়া হবে অথবা দেড় লাখ টাকার চেক দেয়া হবে।

এমন প্রচারে শত শত মানুষ নাম লেখান দায়িত্বশীলদের কাছে। এখানেই শেষ নয়, ধান্দাবাজরা বরাদ্দ নিতে স্যারকে দিতে হবে বলে সুযোগ বুঝে প্রত্যেকের নিকট থেকে ১০ হাজার টাকা করে ঘুষ নিয়েছে।

অনুসন্ধানে জানা যায়, শুধুমাত্র ধামইরহাট উপজেলার ৪নং উমার ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ড থেকে ১৬৫ জনের নিকট থেকে প্রায় সাড়ে ১৬ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন এই চক্রটি। অন্যান্য ওয়ার্ডগুলোতেও একই চিত্র।

ভুক্তভোগীরা বিভিন্ন এনজিও ও সুদের উপর টাকা নিয়ে ওই ঘুষ প্রতারক চক্রটির নিকট দেয়ায় এখন পড়েছেন বিপাকে। জাতীয় নির্বাচনী বছরে এসে সরকারের নাম ব্যবহার করে যারা লাখ লাখ টাকা যারা হাতিয়ে নিয়েছে তাদের কঠোর শাস্তির দাবি জানিয়েছেন এলাকার সচেতন মহল।

এমতাবস্থায়, স্থানীয় সাংসদ ও জাতীয় সংসদের মাননীয় হুইপ মো, শহীদুজ্জামান সরকারের নিকট সহযোগিতা এবং সংশ্লিষ্ট বিভাগের তদন্ত করার জন্য জোর দাবি জানান অসহায় মানুষগুলো।

ad