নারীকে দিয়ে ফাঁদ পেতে প্রতারণা, পুঠিয়ায় আটক ৪

Puthiya arrest
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: ব্যবসায়ীদের মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে তাদের অনৈতিক কাজের প্রস্তাব দিয়ে ফাঁদে ফেলে প্রতারণার অভিযোগে রাজশাহীর পুঠিয়া থেকে এক নারীসহ চারজনকে আটক করেছে পুলিশ।

শুক্রবার (৩০ মার্চ) গভীর রাতে উপজেলার বানেশ্বর বাজার চেয়ারম্যান পাড়া আয়েন উদ্দীনের বাড়ি থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা হচ্ছে- রাজশাহী মহানগরীর বোয়ালিয়া থানার হেতেমখাঁ এলাকার শওকত আলীর ছেলে শিলু পারভেজ (৪০), একই এলাকার আব্দুস সামাদের ছেলে পিয়াস (৩২), মিলন আহমদের ছেলে মিনহাজুল (২২) ও চারঘাট উপজেলার হাবিবপুর গ্রামের মোসলেম উদ্দীনের মেয়ে মৌটুসি বেগম (২৪)।

পুঠিয়া থানার উপ-পরিদর্শক আল আমীন প্রতারক বলেন, চক্রটি বানেশ্বর বাজারে স্বামী-স্ত্রী পরিচয়ে একটি বাড়িতে বসবাস করে আসছিল। তারা দীর্ঘদিন থেকে বানেশ্বরসহ বিভিন্ন এলাকার ব্যবসায়ীদের মোবাইল নম্বর সংগ্রহ করে মৌটুসি বেগমের মাধ্যমে ওই লোকজনদের সাথে মোবাইলে সর্ম্পক তৈরি করতো। এরপর তাদের অনৈতিক কাজের প্রস্তাব দিত। ওই ফাঁদে পড়ে যারা তাদের বাসায় আসে তাদের জোরপূর্বক জিম্মি করে মোটা অংকের অর্থ আদায় করতো।

তিনি জানান, এর সূত্রে ধরে গত ২৯ মার্চ রাতে প্রতিবেশী ভাড়াটিয়া আলফাজুল ইসলামকে বাসায় ডেকে আনে তারা। পরে ওই চক্রটি আলফাজুল ইসলামকে জুসের সাথে নেশা জাতীয় ওষুধ মিশিয়ে অচেতন করে তার বাড়ির মূল্যেবান জিনিসপত্র হাতিয়ে নেয়। এ ঘটনায় শুক্রবার রাতে স্থানীয়রা ওই প্রতারক চক্রের চার সদস্যকে পুলিশের হাতে তুলে দেন।

শনিবার দুপুরে আটককৃতদের আদালতের মাধ্যমে তাদের জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে বলে জানান তিনি।

ad