সোনারগাঁয়ে মাদকসহ গ্রেপ্তার ৭, স্কুলছাত্রী হত্যায় মামলা

narayanganj
ad

স্থানীয় প্রতিনিধি: নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয়ে পুলিশের কয়েকটি দল অভিযান চালিয়ে ইয়াবাসহ সাত মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেপ্তার করেছে।

শুক্রবার (২৭ এপ্রিল) রাতে উপজেলার বিভিন্ন স্থান থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

সোনারগাঁ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শাহ কামাল জানান, উপজেলার বিভিন্ন স্থানে মাদক বিরোধী অভিযান চালানো হয়। এ সময় গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ইয়াবাসহ সাত ভৈদ্যেরবাজার ইউনিয়নের ভাইয়াপাড়া গ্রামের মৃত ফরিদ মিয়ার ছেলে শাওন, পৌরসভার দৈল্যেরবাগ গ্রামের সুরুজ মিয়ার ছেলে ইয়াছিন আরাফাত, মোগরাপাড়া ইউনিয়নের বাড়ি চিনিষ গ্রামের গিয়াস উদ্দিনের ছেলে ফয়সাল আহাম্মেদ অতু, হাবিবপুর গ্রামের আবু সাইদ মিয়ার ছেলে সারফিন হাসান পিয়াল, একই গ্রামের মৃত দেলোয়ার হোসেনের ছেলে অপু রায়হানকে গ্রেপ্তার করা হয়।

এছাড়া অন্য একটি অভিযানে উপজেলার কলতাপাড়া গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে আলী আজগর ও সোনারগাঁ পৌরসভার নোয়াইল গ্রামের শহীদ মিয়ার ছেলে দুলাল মিয়াকে গ্রেপ্তার করা হয় বলে জানান তিনি।

এদিকে, সোনারগাঁ উপজেলার দাউদেরগাঁও গ্রামের স্কুল ছাত্রী আনিছা আক্তার (৯) হত্যার ঘটনায় থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

শনিবার দুপুরে নিহতের মা ইয়াছমিন আক্তার বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা কয়েকজনকে আসামী করে হত্যা মামলা দায়ের করেন।

সোনারগাঁ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোরশেদ আলম জানান, স্কুল ছাত্রী হত্যার ঘটনায় নিহতের মা ইয়াছমিন আক্তার বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। হত্যার সঙ্গে জড়িতদের গ্রেপ্তার করার জন্য পুলিশের কয়েকটি দল কাজ করছে।

উল্লেখ্য, উপজেলার বৈদ্যেরবাজার ইউনিয়নের দাউদেরগাঁও গ্রামের সৌদি আরব প্রবাসী আনিছুর রহমানের মেয়ে আনিছা আক্তার গত ২৩ এপ্রিল সকালে স্কুলে যাওয়ার সময় নিখোঁজ হয়। নিখোঁজের চারদিন পর শুক্রবার সকালে উলুকান্দি গ্রামের আব্দুল মালেক মিয়ার নির্মাণাধীন দ্বিতীয় তলা ভবনের সেপ্টিক ট্যাংক থেকে পুলিশ আনিছার লাশ উদ্ধার করেন।

ad