দয়া করে আমাকে ভুল বুঝবেন না: সাকিব (ভিডিও)

ad

স্পোর্টস ডেস্ক: সারাদেশে নিরাপদ সড়কের দাবিতে রাজপথে চলমান শিক্ষার্থীদের আন্দোলনের প্রতি নিজের সমর্থনের কথা জানিয়ে শিক্ষার্থীদের ক্লাসে ফিরে পড়াশোনায় মনোনিবেশ করতে বলায় অনেকের সমালোচনার মুখে পড়ায় বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসান বলেছেন, দয়া করে আমাকে ভুল বুঝবেন না।

শুক্রবার (৩ আগস্ট) বাংলাদেশ সময় রাত ১০টা ২৯ মিনিটে ফ্লোরিডায় জাতীয় ক্রিকেট দলের সঙ্গে অবস্থানরত সাকিব তার নিজের ভেরিফাইড পেজে একটি ভিডিও বার্তায় এ কথা বলেন।

ভিডিও বার্তায় সাকিব বলেন, আমি তোমাদের এই আন্দোলনের সঙ্গে একাত্মতা প্রকাশ করছি। আবারও তোমাদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি। সেই সঙ্গে এটাও বলতে চাই, এটা শুধু শিক্ষার্থীদের দাবি হওয়া উচিত নয়, এটা সকল মানুষের দাবি হওয়া উচিত। এ কারণেই সকল শিক্ষার্থীদের ধন্যবাদ দিতে চাই যে তোমরা আমাদের রাস্তা দেখিয়ে দিয়েছ।

তিনি বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এ বিষয়টি সম্পর্কে খুব ভালোভাবে অবগত আছেন। তিনি কিছু পদক্ষেপ গ্রহণ করেছেন এবং করছেন। যা বাস্তবায়ন হতে হয়তো একটু সময় লাগবে। আমাদের উচিত হবে সব শিক্ষার্থীকে এটা এখন বোঝানো যে তাঁদের ক্লাসে ফিরে যেতে। ঠিকমতো পড়াশোনায় আবার মনোনিবেশ করতে। এই দাবি যদি পূরণ না হয় এবং ভবিষ্যতে যদি আমাদের এই আন্দোলন আবার করতে হয় তোমরা আমাকে সব সময় পাশে পাবে, এই ওয়াদা আমি করছি।’

ভিডিও বার্তার নিচে সাকিব লিখেছেন, আমার সকল ভক্তদের জানাচ্ছি যে আপনারা হয়তো আমার ব্যক্ত করা কথায় আমাকে ভুল বুঝছেন। দয়া করে আমাকে ভুল বুঝবেন না। আমারও আপনাদের সবার মতো পরিবার আছে, যাদের নিরাপত্তা আমার কাছেও অনেক বেশি মুল্যবান। আমি আপনাদেরই একজন, আমি সব সময় আপনাদের সাথে ছিলাম, আছি এবং কথা দিচ্ছি ভবিষ্যতেও থাকব।

তিনি আরও লিখেছেন, আমি শুধু বলতে চাই যে আপনাদের আন্দোলনকে একটি সঠিক ফলাফলে পৌছে দেয়ার জন্যে আমাদের সরকারকে সুযোগ দেয়া উচিত যেন সরকার খুব দ্রুত আপনাদের দাবি বাস্তবায়ন করতে পারে।

এর আগে শুক্রবার (৩ আগস্ট) বাংলাদেশ সময় সন্ধ্যা ৭টা ১৯ মিনিটে ফ্লোরিডায় জাতীয় ক্রিকেট দলের সঙ্গে অবস্থানরত সাকিব তার নিজের ভেরিফাইড পেজে দেয়া এক পোস্টের একটি অংশে লিখেছিলেন, তোমাদের সাধুবাদ জানিয়ে বলতে চাই, তোমাদের দাবি কার্যকর হচ্ছে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নিহত পরিবারকে আর্থিক সহায়তা ছাড়াও নিরাপদ সড়ক আইন করতে আন্তরিকভাবে কাজ করছেন। ইতোমধ্যে অভিযুক্ত পরিবহনের রুট পারমিট বাতিল সহ পাঁচজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।

সকল শিক্ষার্থীর প্রতি অনুরোধ জানিয়ে সাকিব আরও লিখেছিলেন- এ অবস্থায় তোমাদের কাছে বিনীত অনুরোধ করবো, ক্লাসে ফিরে পড়াশোনায় মনোনিবেশ করতে। তোমরা যা করেছ তা এদেশে ইতিহাস হয়ে থাকবে। এ অর্জন সফল হবে তোমাদের পড়ার টেবিলে ফিরে যাওয়ার মাধ্যমে। তোমাদের দাবি পূরণ হয়েছে এবং হচ্ছে। ব‍্যত‍্যয় ঘটলে আমাকে পাবে তোমাদের সাথে।

কিন্তু সমালোচনার মুখে পড়ায় পোস্টটি ডিলিট করে কালই নতুন পোস্ট করেন এই অলরাউন্ডার।

ভিডিও দেখতে ক্লিক করুন এখানে: 

আমার সকল ভক্তদের জানাচ্ছি যে আপনারা হয়তো আমার ব্যাক্ত করা কথায় আমাকে ভুল বুঝছেন। দয়া করে আমাকে ভুল বুঝবেন না, আমারও আপনাদের সবার মতো পরিবার আছে, যাদের নিরাপত্তা আমার কাছেও অনেক বেশি মুল্যবান। আমি আপনাদেরই একজন, আমি সব সময় আপনাদের সাথে ছিলাম, আছি এবং কথা দিচ্ছি ভবিষ্যতেও থাকব। আমি শুধু বলতে চাই যে আপনাদের আন্দোলনকে একটি সঠিক ফলাফলে পৌছে দেয়ার জন্যে আমাদের সরকার কে সুযোগ দেয়া উচিত যেন সরকার খুব দ্রুত আপনাদের দাবি বাস্তবায়ন করতে পারে।–Dear fans and followers, some of you seem to have misunderstood my message to you all. Please know that I'm with you all and let's try to give your movement shape by allowing our government to meet your demands asap. Please remember I have a young daughter, a sister, a wife and parents like many of you. Love, Shakib

Gepostet von Shakib Al Hasan am Freitag, 3. August 2018

ad