রিয়ালকে হারিয়ে অ্যাতলেটিকোর সুপার কাপ জয়

Jagoran- Atletico, Super Cup, win
ad

স্পোর্টস ডেস্ক: উয়েফা সুপার কাপের ফাইনালে নগর প্রতিদ্বন্দ্বি অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদের কাছে ৪-২ গোলে বিধ্বস্ত হয়েছে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোবিহীন রিয়াল মাদ্রিদ। ফলে শিরোপা জয়ের আনন্দে মৌসুম শুরু করল দিয়েগো সিমেওনের দল।

বুধবার (১৫ আগস্ট) রাতে এস্তোনিয়ার তালিনে অনুষ্ঠিত ম্যাচের নির্ধারিত সময়ে ২-২ গোলে সমতায় থাকা খেলা গড়ায় অতিরিক্ত সময়ে। পরে অতিরিক্ত সময়ে করা ২ গোলে অ্যাতলেটিকোর শিরোপা নিশ্চিত হয়।

ম্যাচের শুরুর ৫০ সেকেন্ডের মাথায় গোল করে বসেন ডিয়েগো কস্তা। ডিয়েগো গডিনের বাড়ানো বল মাঝমাঠে নিয়ন্ত্রণ নিয়ে জাল খুঁজে নেন কস্তা। এই স্প্যানিশ ফরোয়ার্ড তাতে সুপার কাপের ইতিহাসে দ্রুততম গোলের রেকর্ডটিই করে বসেন।

প্রতিযোগিতার ইতিহাসে দ্রুততম গোলের আগের রেকর্ডটি ছিল এভার বানেগার দখলে। ২০১৫ সালে বার্সেলোনার কাছে ৫-৪ ব্যবধানে হারের ম্যাচে তৃতীয় মিনিটে রেকর্ডটি গড়েছিলেন সেভিয়ার আর্জেন্টাইন মিডফিল্ডার।

১৭তম মিনিটে ইয়ান ওবলাকের নৈপুণ্যে ব্যবধান ধরে রাখে আতলেতিকো। মার্সেলোর নিচু ক্রসে মার্কো আসেনসিওর ফ্লিক ঝাঁপিয়ে এক হাত দিয়ে ঠেকান স্লোভেনিয়ার গোলরক্ষক।

ম্যাচের ২৭ মিনিটে সমতায় ফেরে রিয়াল। গ্যারেথ বেলের ক্রসে মাথা ছুঁয়ে জালে বল পাঠান ফরাসি ফরোয়ার্ড করিম বেনজেমা।

৬৩তম মিনিটে রামোসের সফল স্পট কিকে এগিয়ে যায় রিয়াল। কর্নার থেকে উড়ে আসা বল স্প্যানিশ ডিফেন্ডার হুয়ানফ্রানের হাতে লাগলে পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি।

৭৯তম মিনিটে আবারও কস্তার গোল। সমতায় ফেরে রিয়ালের নগর প্রতিদ্বন্দ্বি অ্যাতলেটিকো।

পরে অতিরিক্ত সময়ের প্রথমার্ধে দুই গোল করে জয় নিশ্চিত করে অ্যাতলেটিকো। প্রথমে ৯৮ মিনিটে গোল করেন স্প্যানিশ মিডফিল্ডার সাউল। আর ১০৪ মিনিটে আরেক স্প্যানিশ কোকে শেষ পেরেকটি ঠোকেন।

টানা চার বছর চ্যাম্পিয়নস লীগে নগর প্রতিদ্বন্দ্বির কাছে হারতে হয়েছে অ্যাতলেটিকোকে। ২০১৪ ও ২০১৬ সালের ফাইনালে রিয়াল জিতে হাতে নেয় ট্রফি। ২০১৫ ও ২০১৭ সালেও নকআউটে তাদের কাছে হেরে বিদায় নিতে হয় সিমিওনের শিষ্যদের। এবার সেই হারের বৃত্ত থেকে বেরিয়ে ২০১০ ও ২০১২ সালের পর সুপার কাপ জিতল অ্যাতলেটিকো।

ad