অস্ট্রেলিয়ার হয়ে আর মাঠে নামবেন না ওয়ার্নার!

field, do not get off, Warner,
ad

স্পোর্টস ডেস্ক: অস্ট্রেলিয়ার হয়ে ভবিষ্যতে মাঠে নামার বিষয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটের সদ্য সাবেক সহ-অধিনায়াক ও মারমুখী ওপেনিং ব্যাটসম্যান ডেভিড ওয়ার্নার।

শনিবার (৩১ মার্চ) এক সংবাদ সম্মেলনে অঝরে ধারায় কান্নাকাটি করে ওয়ার্নার জানান, নিষেধাজ্ঞা কাটার পর তিনি অস্ট্রেলিয়ার হয়ে মাঠে নাও নামতে পারেন। তার বিরুদ্ধে সব অভিযোগ স্বীকার করে তিনি অস্ট্রেলীয় ক্রিকেটভক্তদের কাছে ক্ষমা চান।

অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেটের সদ্য সাবেক সহ-অধিনায়ক জানান, নিষেধাজ্ঞা কাটার পর তিনি অস্ট্রেলিয়ার হয়ে মাঠে নাও নামতে পারেন। তার বিরুদ্ধে সব অভিযোগ স্বীকার করে তিনি অস্ট্রেলিয় ক্রিকেটভক্তদের কাছে ক্ষমা চান। ওয়ার্নারের অনিশ্চিত ভবিষ্যতের খবর দিয়েছে ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া এইউ।

ক্রিকইনফোর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, সংবাদ সম্মেলনে ওয়ার্নার ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার নিষেধাজ্ঞার বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নেবেন কিনা, এমন কোনো প্রশ্ন করা হয়নি। তবে তিনি আবার ক্রিকেট খেলবেন কিনা, এই প্রশ্ন করলে আপাতত পরিবারের সঙ্গে সময় কাটানো নিয়েই তার সব ভাবনা বলে ওয়ার্নার জানান।

সংবাদ সম্মেলন শেষ হওয়ার পর এক টুইট বার্তায় অস্ট্রেলিয়ার সাবেক এই তারকা ব্যাটসম্যান বলেন, অনেক প্রশ্নেরই জবাব দিতে পারিনি। আমি পরিস্থিতি বুঝতে পারছি। সময় মতো সব প্রশ্নের জবাব দিতে সর্বোচ্চ চেষ্টা করব। কিন্তু এসবের জন্য ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার কিছু আনুষ্ঠানিকতা রয়েছে।

তিনি বলেন, এখানে সব কিছু পরিষ্কার করে বলতে না পারায় আমি দুঃখিত। পরিবার এবং ক্রিকেটের প্রতি সম্মান রেখেই বলতে চাচ্ছি, সব কিছুর একটা নির্দিষ্ট প্রক্রিয়া রয়েছে, যেটা আমাকে অনুসরণ করতে হবে।

এর আগে দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে দেশের উদ্দেশ্যে বিমানে চড়েই টুইটারে নিজের কৃতকর্মের জন্য ক্ষমা চেয়ে ওয়ার্নার জানান, ২-১ দিনের মধ্যেই সব খোলাসা করবেন তিনি। আজ সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে সংবাদ সম্মেলন করেছেন। এখানেও বল টেম্পারিং কাণ্ডে নিজের অংশের দায় কাঁধে নিয়েছেন। দেশবাসী ও বিশ্বের আনাচে-কানাচে ছড়িয়ে-ছিটিয়ে থাকা ভক্ত-সমর্থকদের কাছে ফের ক্ষমা চেয়েছেন।

দুঃখ ভারাক্রান্ত হৃদয় নিয়ে অজি ওপেনার বলেন, খেলাটির ভক্ত-সমর্থকদের প্রতি যারা আমার দীর্ঘ ক্রিকেট ক্যারিয়ারে সমর্থন ও অনুপ্রেরণা জুগিয়েছেন, বিশ্বাসভঙ্গ বা প্রতারণা যা-ই বলুন, এজন্য আপনাদের কাছে ক্ষমা চাচ্ছি। আমি আপনাদের অনেক কষ্ট দিয়েছি। এজন্য অনুতপ্ত। আশা করি, ফিরে ফের সবার মন জয় করতে পারবো।

দুইদিন আগে সংবাদ সম্মেলনে নিজের অপরাধ স্বীকার করে কেঁদেছিলেন স্টিভ স্মিথ। তাদের মত কান্নাকাটি করেছেন ক্যামেরন বেনক্রফটও।

ad