ব্রাজিলের শক্তি যেখানে দুর্বলতা যেখানে

Brazil
ad

স্পোর্টস ডেস্ক: ২০০২ সালের পর আর কোনো বিশ্বকাপ জিততে পারেনি ব্রাজিল। ১৬ বছরের শিরোপা খরা কাটাতেই এবার তারা রাশিয়া যাবে। তাদের যে দল তা শিরোপারও দাবিদারও। গত কয়েক বছরের মধ্যে এবার সবচেয়ে ব্যালেন্স টিম নিয়ে বিশ্বকাপে যাচ্ছে ব্রাজিল। তবে তাদের এই দলের কিছু দুর্বলতাও রয়েছে।

দেখে নেওয়া যাক ব্রাজিলের শক্তি যেখানে আর দুর্বলতা যেখানে

শক্তি যেখানে:

এবার ব্রাজিল দলে আছেন দুইজন অসাধারণ গোলকিপার অ্যালিসন ও এডারসন। দু’জনই ক্লাবের হয়ে খেলছেন দারুণ। এটা অন্য দলগুলোর চাইতে তাদের একটু এগিয়ে রাখবে।

ব্রাজিলের লেফটব্যাক সামলানোর দায়িত্বটা এবার থাকবে মার্সেলোর। এই তারকা এখন আছেন জীবনের সেরা ফর্মে। রিয়াল মাদ্রিদকে এবার চ্যাম্পিয়ন্স লীগ জেতানোয় রোনালদোর পর সবচেয়ে বড় ভূমিকা তার। বলতে গেলে তিনিই এখন বিশ্বসেরা লেফটব্যাক।

সেন্টার ডিফেন্সে ব্রাজিলের যে কয়জন খেলেন তারা সবাই বিশ্বমানের। থিয়াগো সিলভা, মাকুইনহোস, দানিলো আর ফিলিপে লুইসকে ফাঁকি দিয়ে গোলপোস্টে বল জড়ানো সব খেলোয়াড়ের জন্যই বেশ কঠিন।

সেন্টার মিডফিল্ডে ব্রাজিল আরও স্বয়ংসম্পূর্ণ। এখানে খেলে থাকেন ফার্নান্দিনহো, পলিনহো ও ক্যাসিমিরো। এই তিন তারকাই এখন মধ্যে নিয়মিত একাদশে জায়গা হতে পারে পলিনহো ও ক্যাসিমিরোর। তাদের একজন যদি খারাপ করে তাহলেও কোনো সমস্যা নেই। ব্যাকআপ হিসেবে ফার্নান্দিনহো তো আছেনই।

অ্যাটাকিং মিডফিল্ডে এবার খেলবেন কুতিনহো। এবারের বিশ্বকাপের অন্যতম বড় তারকা তিনি। তার যে গতি আর পাসিং স্কিল তাতে বেশ বিপাকেই পড়বেন বিপক্ষ দলের রক্ষণভাগের খেলোয়াড়রা। লেফট উইঙ্গার হিসেবে খেলবেন উইলিয়ান বা ফিরমিনো। এই দুই তারকাকে নিয়ে কোচ তিতেকে পড়তে হবে সমস্যায়। কারণ তারা দু’জনই এখন ফর্মের তুঙ্গে। রাইট উইঙ্গার হিসেবে খেলবেন নেইমার। তার একটু ইনজুরি থাকলেও পারফরমেন্সে তেমন কোনো সমস্যা হবে না।

লোন স্ট্রাইকার হিসেবে দেখা যেতে পারে গ্যাব্রিয়েল জিসুসকে। তবে তিনি একটু চোটে আছেন। চোট না সাড়লে তার জায়গায় খেলবেন ফিরমিনো।

দুর্বলতা যেখানে

এবারের ব্রাজিল দলের দুর্বল দিকটা হচ্ছে তাদের রাইটব্যাক। এখানে খেলা দানি আলভেজ আছেন ইনজুরিতে। তার জায়গায় খেলবেন ফ্যাগনার। এই তারকার এটিই প্রথম বিশ্বকাপ। তাছাড়া তার ফর্মও খুব একটা ভালো যাচ্ছে না। তাই এই জায়গাটা নিয়ে তিতে একটু দুশ্চিন্তায় আছেন।

তবে তিতের সবচেয়ে বড় দুশ্চিন্তার কারণ ইনজুরি। দলের মোট ছয়জন খেলোয়াড় ইনজুরিতে আছেন। বিশেষ করে নেইমার এখনো পুরো ফিট নয়। এবার ব্রাজিলের সবচেয়ে দুর্বল দিক হচ্ছে এটি। আরও একটি দুর্বলতা হচ্ছে বেশিরভাগ তারকারই এবার প্রথম বিশ্বকাপ। তারা কতটুকু চাপ সামলাতে পারে সেটাই এখন দেখার বিষয়।

ad