সাকিব খেলতে চাইলে আমাদের আপত্তি নেই: পাপন

সাকিব করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর মঙ্গলবার (১০ মে) বিসিবি এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, চট্টগ্রাম টেস্ট থেকে ছিটকে গেছেন সাকিব আল হাসান। তিন দিন আইসোলেশনে থাকার পর শুক্রবার (১৩ মে) করোনামুক্ত হন বিশ্বসেরা এই বাঁহাতি এই অলরাউন্ডার। ফলে চট্টগ্রাম টেস্টে খেলার দুয়ার উন্মুক্ত হয়ে গেছে তার।


করোন থেকে ফিরে অনুশীলন ছাড়া পাঁচ দিনের টেস্ট খেলা বেশ কঠিন! ‘বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন সাকিবের বিষয়ে জানালেন, সাকিব খেলতে চাইলে তাদের কোনো আপত্তি থাকবে না।’


আজ সন্ধ্যায় চট্টগ্রামে দলের সঙ্গে যোগ দেবেন সাকিব। সাকিবের খেলা নিয়ে চট্টগ্রামে পাপন বলেন, ওর সাথে যে কথাটা হয়েছে যে, ও নেগেটিভ হলে এখানে আসছে। তবে সে অনুশীলনে নেই। প্লাস ওর ফিজিক্যাল কন্ডিশনও বলেছে ও সুস্থ বোধ করছে। কিন্তু এটা পুরোটাই হচ্ছে মেডিক্যাল ইস্যু। এখানে মেডিক্যাল টিমের যারা আছে, ফিটনেস ট্রেনার যারা আছে, তারাই ওকে বিচার করবে।


বিসিবি সভাপতি বলেন, হয়তো সে খেলতে পারে আবার নাও খেলতে পারে, এটা আসলে বলাটা মুশকিল। ওর ওপর নির্ভর করছে, টিমের ওপর নির্ভর করছে। এখানে আবেগী হওয়ার কিছু নেই। কিন্তু করোনা নেগেটিভ হয়ে খেলা এটা যদি ওডিআই হতো, আমরা বলতাম খেলো। কিন্তু এটা পাঁচ দিনের খেলা, আমরা চাইবো না ওর জন্য বাড়তি চাপ হোক বা ক্ষতির ইস্যু হয়। সেজন্য আমরা সাবধানে যাবো এবং ওর ওপর পূর্ণ স্বাধীনতা দেয়া আছে। ও যদি খেলতে চায়, তাহলে ও খেলবে, ওকে তো না করার কোনো সুযোগ নেই।


বোর্ড সভাপতি পাপন বলেন, ওর ফিটনেসটা নিশ্চিতভাবে দেখবে। ও অনুশীলন করুক, তারপর যদি মনে করে খেলবে তাহলে আমাদের বলবে এবং ফিটনেস ট্রেনার যদি ক্লিয়ার দিয়ে দেন তাহলে নিশ্চিতভাবে খেলবে।