চাল আমদানির ক্ষেত্রে বাকিতে খোলা যাবে এলসি

rice
ad

জাগরণ ডেস্ক: চালের বাজারে অস্থিতিশীলতা দূর করতে চাল আমদানির ক্ষেত্রে বাকিতে এলসি খোলা যাবে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। চাল আমদানিকারকরা চলতি বছরের ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত এ সুবিধা পাবেন।

সোমবার (১৯ জুন) বাংলাদেশ ব্যাংক এ সংক্রান্ত একটি প্রজ্ঞাপন জারি করেছে।

দেশের সব বাণিজ্যিক ব্যাংকের প্রধান নির্বাহীর কাছে পাঠানো এই প্রজ্ঞাপনে বলা হয়েছে, সম্প্রতি হাওর এলাকায় বন্যা, দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে অতিবৃষ্টিসহ অন্যান্য প্রাকৃতিক দুর্যোগের কারণে চালের স্বাভাবিক সরবরাহে বিঘ্ন ঘটায় চালের বাজারে অস্থিতিশীলতা পরিলক্ষিত হচ্ছে। এ অবস্থায় নিত্য প্রয়োজনীয় পণ্য হিসেবে বাজারে চালের সরবরাহ নিশ্চিত করতে চাল আমদানির ক্ষেত্রে ব্যাংকার-গ্রাহক সম্পর্কের ভিত্তিতে শূন্য মার্জিনে ঋণপত্র (এলসি) স্থাপনের জন্য পরামর্শ দেয়া যাচ্ছে।

ব্যাংকগুলোর সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, চাল আমদানির জন্য ঋণপত্র (এলসি) খুলতে ব্যবসায়ীদের নগদ অর্থ জমা দিতে হয়। নগদ টাকা না থাকায় অনেক ব্যবসায়ী ঋণপত্র (এলসি) খুলতে পারছেন না। এ সিদ্ধান্তের ফলে ব্যবসায়ীরা চাল আমদানিতে সুবিধা পাবেন।

ad