‘দলে থাকবো কিনা চিন্তা করলে ভয় পাই’!

mushi in a programme
ad

স্পোর্টস ডেস্ক: দলের পাইপলাইনে পর্যাপ্ত পরিমাণ যোগ্যতা সম্পন্ন ক্রিকেটার রয়েছে জানিয়ে বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মুশফিকুর রহিম বলেছেন, তাদের জন্য আমি নিয়মিত দলে সুযোগ পাবো কিনা, সেটা চিন্তা করলেই আমি ভয় পাই।

মঙ্গলবার (১৫ মে) রাজধানীর একটি রেস্টুরেন্টে ফেসবুকভিত্তিক ক্রিকেট গ্রুপ ‘মুশফিকুর রহিম আওয়ার লাভ, আওয়ার প্রাউড’ এর প্রথম বর্ষপূর্তি উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে সিনিয়র ক্রিকেটারদের ছাড়া দলের তরুণ ক্রিকেটারদের ওপর নির্ভর করা যায় কিনা- সাংবাদিকদের করা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি এ মন্তব্য করেন।

মুশফিকুর রহিম বলেন, আফগানিস্তানের বিপক্ষে আসন্ন সিরিজের জন্য দল প্রস্তুতি নিচ্ছে। রশিদ খান এবং মুজিবুর রহমানের মতো লেগ স্পিনারদের বিপক্ষে খেলার প্রস্তুতি হিসেবে নেটে ব্যাটসম্যানরা জুবায়ের হোসেনের বল খেলছে।

অনুষ্ঠানে বার্সেলোনার ক্যাপ পরে আসায় উপস্থিত রিয়াল মাদ্রিদ ফ্যানদের ভীষণ হতাশ করলেন কিনা- সাংবাদিকের করা এমন রসিকতা ভরা প্রশ্নে হাঁসতে হাঁসতে মুশফিক বলেন, আসলে তেমন কিছু না। আমার মাথায় চুল নেই তাই ক্যাপ পরে আসা। তবে হ্যাঁ আমি লিওনেল মেসির একজন বিশাল বড় ভক্ত।

রাশিয়া বিশ্বকাপে কোন দলকে সমর্থন করবেন জানতে চাইলে মি. ডিপেন্ডেবল বলেন, দুর্ভাগ্যজনকভাবে আমি যে দলকে সমর্থন করি সেই দল এবার কোয়ালিফাই করতে পারেনি, দলটি হচ্ছে নেদারল্যান্ড। তবে যেহেতু আমি মেসির ভক্ত তাই চাই এবারের বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনা ভালো করুক এবং অনেক দূর পর্যন্ত যাক, যাতে মেসির বেশি ম্যাচ দেখতে পারি।

মাঠের ভেতরের মুশফিক যেমন নির্ভরতার প্রতীক, পাশাপাশি মাঠের বাইরের মুশফিক একজন মানবিক ব্যক্তি। কয়েকদিন আগে তিনি বৃদ্ধাশ্রমে গিয়ে সেখানে থাকা সবার সাথে একান্তভাবে সময় পার করেন। তারও আগে বিরল রোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি থাকা শিশু মুক্তামনিকেও তিনি দেখতে গিয়েছিলেন।

মানবিক সাহায্য সামর্থ্য অনুযায়ী করার ব্যাপারে আপনার ভক্তদের জন্য কোনো বার্তা দিতে চান কিনা- সাংবাদিকের এমন প্রশ্নের জবাবে মুশফিক বলেন, আমরা ক্রিকেটার হই কিংবা যে যেমন অবস্থানেই থাকি না কেন দিন শেষে আমরা সবাই মানুষ। তাই যার যার অবস্থান থেকে মানবিকভাবে সাহায্য করার প্রয়োজনীয়তা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, আমি এসব কার্যক্রমের সাথে সবসময় থাকতে চাই। যারা আজকের এই অনুষ্ঠান আয়োজন করেছে তাদেরকে নিয়ে প্রয়োজনে আমি বসবো। তাদের সাথে বিষয়গুলো নিয়ে আলোচনা করবো। পরিকল্পনা করেই তারপর এসব কার্যক্রম বাস্তবায়ন করতে হবে।

‘মুশফিকুর রহিম আওয়ার লাভ, আওয়ার প্রাউড’ গ্রুপের পক্ষ থেকে মুশফিকের হাতে একটি ক্রেস্ট, গ্রুপের নিজস্ব টি-শার্ট এবং তার শিশুপুত্র মায়ানের জন্য উপহার তুলে দেয়া হয়। প্রায় দুই ঘণ্টাব্যাপী অনুষ্ঠানের সঞ্চালনায় ছিলেন ফারজানা জহির প্রমি।

ad