যুদ্ধাপরাধ: কারাবন্দী যশোরের বিল্লাল হোসেনের মৃত্যু

DMC main gate
ad

জাগরণ ডেস্ক: মুক্তিযুদ্ধকালীন সময়ে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে আমৃত্যু কারাদণ্ডপ্রাপ্ত মো. বিল্লাল হোসেন বিশ্বাস (৮০) চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছে।

বৃহস্পতিবার (১০ মে) দিবাগত রাত ১টার দিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

বিল্লাল বাধর্ক্যজনিত বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগে ভর্তি ছিল। গত ৫ মে তাকে কাশিমপুর কারাগার থেকে ঢাকা মেডিকেলে নিয়ে আসা হয়।

এরপর গতকাল (১০ মে) তিনি সুস্থ হলে ওই দিন বিকেলে তাকে রিলিজ দেয়া হয়। ছাড়পত্র নিয়ে কাশিমপুর কারাগারে নেয়ার সময় পথে আবারও তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরে তাকে পুনরায় ঢামেকে নিয়ে আসা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

ঢামেক পুলিশ ক্যাম্পের ইনচার্জ বাচ্চু মিয়া বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে রাখা হয়েছে।

বিল্লাল হোসেন বিশ্বাসের বাড়ি যশোরের কেশবপুরের নেহালপাড়া গ্রামে। ১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধের সময় বিল্লাল রাজাকার বাহিনীতে যোগ দেয় এবং অপহরণ করে আটকে রেখে নির্যাতন এবং হত্যার মত মানবতাবিরোধী অপরাধে যুক্ত হয় বলে আদালতের বিচারে উঠে আসে।

ওই মামলার বিচার চলাকালে ২০১৪ সালে গ্রেপ্তার হয় বিল্লাল। তারপর থেকে সে কারাগারেই ছিল।

ad