স্কুলে ভর্তির আবেদন শুরু ২৫ নভেম্বর

সারাদেশের স্কুলগুলোতে ভর্তির অনলাইন আবেদন শুরু হচ্ছে আগামী ২৫ নভেম্বর। আবেদন করা যাবে ৮ ডিসেম্বর পর্যন্ত। এবার সরকারি-বেসরকারি স্কুলে ভর্তির আবেদন প্রক্রিয়া একসঙ্গে চলবে।


বৃহস্পতিবার মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের (মাউশি) এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।


সভা সূত্রে জানা গেছে, করোনা পরিস্থিতির কারণে এবছর সরকারি-বেসরকারি সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে অনলাইনের মাধ্যমে ভর্তিফরম বিক্রি করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। প্রথমবারের মতো সারাদেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে উভয় স্তরের ভর্তি লটারি কেন্দ্রীয়ভাবে আয়োজন করা হবে। আগামী ২৫ নভেম্বর আবেদন শুরু হয়ে ৮ ডিসেম্বর পর্যন্ত চলবে। সরকারি স্কুলভর্তির লটারি ১৫ ডিসেম্বর ও বেসরকারি স্কুলের লটারি ১৯ ডিসেম্বর আয়োজন করা হবে।


জানা গেছে, সরকারি স্কুলের প্রথম শ্রেণি থেকে নবম শ্রেণি পর্যন্ত লটারিতে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ১৮ ডিসেম্বর থেকে ২৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত ভর্তি করানো হবে। আর অপেক্ষমাণ তালিকা থেকে ২৬ থেকে ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত ভর্তি করানো যাবে।


অন্যদিকে, বেসরকারি স্কুলে ২১ থেকে ২৭ ডিসেম্বর পর্যন্ত লটারিতে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ভর্তি করানো হবে। অপেক্ষমাণ তালিকা অনুযায়ী ২৮ থেকে ৩০ ডিসেম্বর পর্যন্ত ভর্তি হতে পারবে শিক্ষার্থীরা। এ বিষয়ে টেলিটকের সঙ্গে আলোচনা করে স্কুলভর্তির সময় নির্ধারণ করা হয়েছে বলেও জানা গেছে।


এদিকে, করোনার কারণে আগামী বছরের ভর্তি ফরমের মূল্য কমানো হয়েছে। চলতি বছর প্রতিটি বেসরকারি স্কুলে ভর্তি ফরম ২০০ টাকা আর সরকারি স্কুলে ১৭০ টাকা ধার্য ছিল। আগামী বছর একসঙ্গে পাঁচটি স্কুলে আবেদনের জন্য ১১০ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে। সে হিসাবে প্রতি স্কুলে আবেদন ফি ২২ টাকা করা হয়েছে।