পুঠিয়ায় পালিয়ে যাওয়ার সময় প্রেমিক যুগল আটক

রাজশাহীর পুঠিয়ায় প্রেমের টানে প্রেমিকের হাত ধরে ঘর ছেড়ে পালানোর সময় স্থানীয় বাস কাউন্টার মাষ্টারদের হাতে ধরা পড়েছে প্রেমিক যুগল। পরে তাদের দু’জনকেই থানা পুলিশের হাতে দেয়া হয়। 

সোমবার (১৮ নভেম্বর) সকাল সাড়ে ৯টার দিকে পুঠিয়া সদর বাসস্ট্যান্ডে এ ঘটনা ঘটে।

আটককৃত প্রেমিক টাঙ্গাইল সদর উপজেলার আউলটিয়া গ্রামের শাজাহান মিয়ার ছেলে সাদ্দাম হোসেন (২৫) ও প্রেমিকা রাজশাহীর দুর্গাপুর উপজেলার চৌপুকুরিয়া গ্রামের ও কাঠলিবাড়িয়া স্কুল অ্যান্ড কলেজের ৯ম শ্রেণীর ছাত্রী।

বাস কাউন্টার মাষ্টার দেলুয়ার হোসেন বলেন, খুব ভোর থেকে ওই ছাত্রী স্কুল ড্রেস পড়ে ও কাধে একটি ব্যাগ নিয়ে বিভিন্ন বাস কাউন্টারে রহস্যজনক ভাবে ঘুরাফিরা করছিল। 

সকাল সাড়ে ৯টার দিকে একটি ছেলে বাস থেকে নেমে তাকে নিয়ে যাওয়ার সময় আমাদের সন্দেহ হয়। পরে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তারা জানায়, আমরা প্রেমিক-প্রেমিকা। তাদের সম্পর্ক দুই পরিবার মেনে নেয়নি। তাই বিয়ে করতে তারা পালিয়ে যাচ্ছে। সে সময় আমরা থানায় খবর দিলে পুলিশ তাদের নিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রেজাউল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, তাদের দু’জনের মধ্যে কিছু দিন থেকে মোবাইলে সম্পর্ক গড়ে উঠে। সে সূত্রে মেয়েটি প্রাইভেটের নামে বাড়ি থেকে পুঠিয়া বাস ষ্ট্যান্ডে আসে। অপরদিকে ছেলেটি মেয়েটিকে নিতে একই স্থানে আসে। পরে স্থানীয়দের সহয়তায় তাদের থানায় আনা হয়েছে। অপরদিকে দু’টি পরিবারেই খবর দেয়া হয়েছে। অভিভাবকরা আসলে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে।