হিন্দুদের পাশে থাকার আশ্বাস নারায়ণগঞ্জের মুসল্লিদের

হাতে হাত রেখে অসাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির অনন্য উদহারণ সৃষ্টি করলেন নারায়ণগঞ্জের ধর্মপ্রাণ মুসল্লিরা। পূজা মণ্ডপে গিয়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রতি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দিয়ে যে কোনো পরিস্থিতিতে পাশে থাকার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তারা।

বৃহস্পতিবার (১৪ অক্টোবর) রাতে ফতুল্লার ধর্মগঞ্জ শীষ মহল রাধানগর গোবিন্দ মন্দিরে এ ঘোষণা দেন মুসল্লিরা। এ সময় পূজা মণ্ডপের সামনে হিন্দু মুসলিম একে অপরের হাত ধরে উঁচুতে তুলে ধরে একাত্মতা প্রকাশ করেন।

এ সময় আয়োজক কমিটির প্রধান দিলীপ কুমার মণ্ডল মুসল্লিদের পূজা মণ্ডপে অভ্যর্থনা জানান।

মণ্ডপে মানবিক নারায়ণগঞ্জ সংগঠনের নির্বাহী পরিচালক রোমান চৌধুরী সুমন বলেন, কোনো ধর্মকে অসম্মান করা যাবে না। আমার অনেক হিন্দু বন্ধু আছে যাদের আমি নামাজের সময় বলেছি, ‘আমি নামাজ আদায় করে আসি’। সে সময় হিন্দু বন্ধু আমার জন্য মসজিদের বাইরে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করেছে। এ দেশ হিন্দু বৌদ্ধ সব ধর্মের মানুষের দেশ। হিন্দু ভাইয়েরা যদি আমাদের ইবাদতের সময় মসজিদের বাইরে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করতে পারে, তাহলে আমরা কেন পূজায় তাদের পাশে দাঁড়াবো না?

মণ্ডপে মুসল্লিদের আগমন শুভেচ্ছা জানিয়ে আয়োজক কমিটির প্রধান দিলীপ কুমার মণ্ডল বলেন, এভাবে সবাই যদি সহযোগিতার হাত বাড়িয়ে দেয় তাহলে আমাদের মধ্যে ধর্মীয় সম্প্রীতি সৃষ্টি হবে। একে অপরের ধর্মের প্রতি সম্মান বৃদ্ধি পাবে। মুসল্লিরা পূজায় এসে ধর্মীয় সৌহার্দ্য সৃষ্টি করেছেন এবং আমাদের অভয় দিয়ে আনন্দিত করেছেন। তাদের এ আগমন সবার জন্য উদাহরণ হয়ে থাকবে।