ইউপি নির্বাচন: কমলনগরে ত্রিমুখী সংঘর্ষে আহত ১০

লক্ষ্মীপুরের কমলনগর উপজেলার চরকাদিরা ইউনিয়নে আওয়ামী লীগ ও বিদ্রোহী প্রার্থীর কর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষ ও ধাওয়া-পালটাধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ সময় ককটেল বিস্ফোরণ ও ভাঙচুরে ১০ জন আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে।


মঙ্গলবার রাত ৯টার দিকে ইউনিয়নের ফজু মিয়ার হাটে এ ঘটনা ঘটে। 


প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ জানায়, প্রচারণার শেষ দিন চশমা প্রতীক ও আনারস প্রতীকের নির্বাচনী অফিসে সভা চলছিল। এ সময় নৌকার সমর্থকরা নির্বাচনী অফিসে ভাঙচুর চালায় বলে অভিযোগ করেন প্রার্থীরা। পরে ফজু মিয়ার হাটে বিদ্রোহী প্রার্থী বাবুল মোল্লা উসকানিমূলক বক্তব্য দিলে উভয়ের (নৌকা ও চশমা) সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টাধাওয়ার ঘটনা ঘটে। 


এ সময় বেশ কয়েকটি ককটেল বিস্ফোরণসহ ত্রিমুখী (নৌকা, চশমা ও আনারস) সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় উভয়পক্ষের অন্তত ১০ জন আহত হন। পরে দুপক্ষের বিক্ষোভে পুরো বাজারজুড়ে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়লে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। আহতরা স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিয়েছেন। তবে তাদের নাম-পরিচয় জানা যায়নি।


কমলনগর থানার ওসি মোসলেহ উদ্দিন বলেন, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে পুলিশ সতর্ক রয়েছে।


প্রসঙ্গত বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় ধাপে জেলার কমলনগর উপজেলার চরমার্টিন, চরকাদিরা, চরলরেন্স এবং রামগতি উপজেলার চরগাজী ইউপি নির্বাচনে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত ভোটগ্রহণ চলবে।