চুয়াডাঙ্গায় ভ্যান উল্টে ছেলে নিহত, বাবা আহত

চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে পাখিভ্যান উল্টে বাবা বাবলুর রহমান আহত হলেও ছেলে মানিক হোসেন নিহত হয়েছে।

বুধবার (২৪ নভেম্বর) সকালে জীবননগর উপজেলার পাথিলা সড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

গুরুতর আহত বাবলুর রহমান (৪০) কে উদ্ধার করে প্রথমে জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পরবর্তীতে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। নিহত মানিকের মরদেহ উদ্ধার করে জীবননগর থানায় নেয়া হয়েছে।

নিহত মানিক হোসেন (১০) ঝিনাইদহ জেলার মহেশপুর উপজেলার স্বরুপপুর ইউনিয়নের পোড়াপাড়া গ্রামের বাসিন্দা।

স্থানীয় এবং পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, পোড়াপাড়া গ্রামের বাবলুর রহমান এবং তার ছেলে মানিক হোসেন পাখিভ্যানযোগে বাড়ি থেকে জীবননগরে সাপ্তাহিক হাটে যাচ্ছিলেন। এর মধ্যে পাথিলা কৃষি ফার্মের নারকেল বাগানের সামনে পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা দ্রæতগামী একটি কাভার্ডভ্যান তাদেরকে ধাক্কা দেয়। এতে ভ্যান থেকে রাস্তার ওপর উল্টে পড়ে বাবা আহত হলেও ছেলে ঘটনাস্থলেই নিহত হয়। স্থানীয়রা আহত অবস্থায় বাবলুর রহমানকে উদ্ধার করে প্রথমে জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নেন। সেখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে পরবর্তীতে তাকে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।

জীবননগর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আব্দুল খালেক জানান, সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত মানিক হোসেনের মরদেহ উদ্ধার করে জীবননগর থানায় নেয়া হয়েছে। ময়না তদন্তের পর মরদেহ পরিবাবরে কাছে হস্তান্তর করা হবে।