এইচএসসি পরীক্ষার্থীর পায়ের রগকাটা লাশ উদ্ধার

দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলায় মো. সৌরভ (১৮) নামে এক এইচএসসি পরীক্ষার্থীর পায়ের রগকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।


বুধবার সকাল সাড়ে ১০টায় উপজেলার চামুন্ডাই গ্রামের নলশীষা নদীর ধার থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়।


এর আগে মঙ্গলবার রাতে উপজেলায় ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বিজয়ী মেম্বার চাচা সানোয়ার হোসেনের নৈশভোজের অনুষ্ঠানে গিয়ে নিখোঁজ হয় সৌরভ।


নিহত মো. সৌরভ দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলার চামুন্ডাই গ্রামের আনোয়ার হোসেনের ছেলে। নবাবগঞ্জ উপজেলার আফতাবগঞ্জ ডিগ্রি কলেজ থেকে সে এবার এইচএসসি পরীক্ষার্থী ছিল।


জানা যায়, তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে গত ২৮ নভেম্বর নবাবগঞ্জ উপজেলার ১নং জয়পুর ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড থেকে সাধারণ সদস্য পদে বিজয়ী হন সৌরভের চাচা মো. সানোয়ার হোসেন। মঙ্গলবার রাতে স্থানীয় কালীগঞ্জ এলাকায় বিজয়ী প্রার্থী সানোয়ার হোসেন তার সমর্থকদের নিয়ে এক নৈশভোজের আয়োজন করেন। সেই নৈশভোজেই যোগ দিতে যায় মো. সৌরভ। কিন্তু নৈশভোজের আয়োজন চলাকালে সেখানে সৌরভকে আর পাওয়া যায়নি। তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনে অনেকবার কল করা হলেও সে রিসিভ করেনি।


পরে বুধবার সকালে চামুন্ডাই গ্রামের পাশে নলশীষা নদীর ধারে সৌরভের পায়ের রগকাটা লাশ দেখতে পান স্থানীয়রা। এর পর পুলিশে খবর দেওয়া হয়। সকাল সাড়ে ১০টায় পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে সৌরভের রক্তমাথা লাশ উদ্ধার করে।


আফতাবগঞ্জ ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ শহীদুর রহমান জানান, ওই কলেজ থেকে সে এবারের এইচএসসি পরীক্ষার্থী ছিল।


নবাবগঞ্জ থানার ওসি ফেরদৌস ওয়াহিদ জানান, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। প্রকৃত ঘটনা উদ্ঘাটন করে জড়িতদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।