প্রতিদিন ঠিক কতটুকু লবণ খাওয়া উচিত জেনে নিন

লবণ ছাড়া কোনোকিছুরই স্বাদ পাওয়া যায় না। তাই লবণ একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হয়ে দাঁড়িয়েছে। কিন্তু বেশিরভাগ মানুষই জানেন না দিনে ঠিক কতটুকু লবণ খাওয়া উচিত। সেটাই জানিয়েছেন এক চিকিৎসক।

ডায়াটিশিয়ান সুবর্ণা রায় চৌধুরী জানান, একজন পূর্ণবয়স্ক সুস্থ মানুষের প্রত্যেক দিন এক চা চামচ লবণ খাওয়া উচিত। পাঁচ-ছ’গ্রাম লবণ খাদ্যতালিকায় রাখাই যায়। তবে কাঁচা লবণ না খেয়ে রান্নায় লবণ দিয়ে খাওয়াই ভালো বলে মত তার।

অন্যথায় শুকনো খোলায় লবণ নেড়ে, তা খেতে পারেন। বিশেষত উচ্চ রক্তচাপ বা কিডনির সমস্যায় দীর্ঘদিন ভুগলে কাঁচা লবণ খাওয়া বন্ধ করতে হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

তিনি বলেন, অন্যান্য সল্টের তুলনায় টেবল সল্ট খাওয়া বেশি ভালো। তার কারণ টেবল সল্ট রিফাইনড। বিশেষত মেয়েদের জন্য আয়োডাইজ়ড টেবল সল্ট খাওয়া ভালো। অন্য দিকে সি সল্ট যেহেতু সমুদ্রের জল বাষ্পীভূত করে তৈরি হয়, তাই মিনারেলের পরিমাণ সমুদ্র অনুসারে পৃথক হয়।

লবণ খাওয়ার ব্যাপারে তার পরামর্শগুলো হলো

• সাধারণ মাখন, চিজ়, পাউরুটি ইত্যাদি খাবারে কিছুটা পরিমাণে লবণ থাকে। তাই এই জাতীয় খাবার রোজকার খাদ্যতালিকায় থাকলে অন্য খাবারে লবণের পরিমাণ সম্পর্কে সচেতন হতে হবে।

• যাঁরা রোজ কায়িক শ্রম বা ব্যায়াম বেশি করেন, তারা ডায়াটিশিয়ানের পরামর্শ মতো খাবারে লবণের পরিমাণ স্থির করুন। কারণ ঘামের মাধ্যমেও শরীর থেকে জল ও লবণ অনেকটাই বেরিয়ে যায়। ইলেকট্রোলাইট ব্যালান্স কম হলেও ডায়াটিশিয়ানের পরামর্শ নিয়ে লবণের পরিমাণ বাড়াতে হতে পারে।

• বাজারচলতি প্যাকেটজাত খাবার যেমন, চিপস, নাচোজ় থেকে শুরু করে হ্যাম, সসেজ, সয় সস, টম্যাটো সসেও লবণ থাকে। এই ধরনের খাবারের বিষয়েও সচেতন হবেন।

মাছ, মাংস বা ডিম থেকেও সোডিয়াম পাওয়া যায়। তবে রোজকার চাহিদা তাতে মেটে না। সেখানে অল্প লবণ অনেক সহজেই সেই ঘাটতি পূরণ করে।