সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে সাঁড়াশি অভিযান পরিচালনার নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

রাজধানীসহ সারা দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও আবাসিক হলে সাঁড়াশি অভিযান পরিচালনার জন্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বুধবার (৯ অক্টোবর) গণভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী এ কথা জানান।

তিনি বলেন, নামমাত্র টাকা ভাড়া দিয়ে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে পড়াশোনা ও আবাসিক হলে কারা থাকছে, কারা মাস্তানি করছে তা খতিয়ে দেখা হবে।

বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ হত্যার পর বিভিন্ন পর্যায় থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছাত্র রাজনীতি বন্ধের যে দাবি উঠেছে- এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করলে প্রধানমন্ত্রী এক পর্যায়ে বলেন, পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বায়ত্তশাসন দেয়া হয়েছে, খরচ কিন্তু আবার সরকারকেই বহন করতে হয়। একটা ছাত্রের জন্য বছরে কয়েক লাখ টাকা খরচ হয়, সেই হিসাব কিন্তু কেউ রাখে না।

তিনি বলেন, তারা (বুয়েট শিক্ষার্থী) বলছে, অনেক কিছু স্লোগান দিচ্ছে, আমাদের বিরুদ্ধে অনেক কিছু তারা বলতে পারে, এটা ঠিক। তবে একটু হিসাব করে দেখুন একটা ছাত্রের পেছনে সরকার কত টাকা খরচ করে? একজন ডাক্তার বানাতে কত টাকা খরচ করে, একজন ইঞ্জিনিয়ার বানাতে কত টাকা খরচ করে, একজন গ্র্যাজুয়েট করতে কত টাকা খরচ করে। হিসাব করেন, বের হয়ে যাবে। একবার পার্লামেন্টের ভাষণে কিছুটা আভাস দিয়েছিলাম।

শেখ হাসিনা বলেন, স্বাধীনতা ভালো, তবে তা বালকের জন্য নয়, এমন একটা কথা আছে। যে স্বাধীনতার মর্যাদা দিতে পারবে সেটা তার জন্যই ভালো। এই কথাটা মাথায় রাখতে হবে’ বলেন শেখ হাসিনা।

তিনি আরও বলেন, ছাত্র রাজনীতি ব্যান (বন্ধ) করার কথা আসছে ঠিক আছে। বুয়েটের সিন্ডিকেট আছে, কমিটি আছে- তারা যদি মনে করে বন্ধ করে দিবে আমরা তো কোনো রকম হস্তক্ষেপ করব না। তাই বলে ছাত্র রাজনীতিকে দোষারোপ করার কোনো মানে নেই।