জাতির পিতার সমাধিতে প্রধানমন্ত্রী ও আ.লীগের শ্রদ্ধাঞ্জলি

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান-এর সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে গভীর শ্রদ্ধা জানিয়েছেন।

শুক্রবার (২৪ জানুয়ারি) দুপুর ১ টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতির পিতার সমাধি সৌধে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শ্রদ্ধা জানান। পরে ফাতহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাত করে বঙ্গবন্ধুর রূহের মাগফিরাত কামনা করেন। এ সময় সশস্ত্র বাহিনী কর্তৃক অনার গার্ড প্রদান করা হয়। এ সময় নবগঠিত কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ সঙ্গে ছিল।

নব-গঠিত আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের মধ্যে ছিলেন, সাধারন সম্পাদক ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের (এমপি), প্রেসিডিয়াম সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম, মাহবুব উল আলম হানিফ, জাহাঙ্গীর কবির নানক, শাজাহান খান, মতিয়া চৌধুরী, কাজী জাফর উল্লাহ, সাহারা খাতুন, কর্নেল (অবঃ) মুহাম্মদ ফারুক খান, নব গঠিত কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন, গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক শাহিদা সুলতানা, পুলিশ সুপার মুহাম্মদ সাঈদুর রহমান খানসহ জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ।

জুম্মার নামাজের পর বঙ্গবন্ধুর সমাধী সৌধ কমপ্লেক্স মসজিদের দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়। এ মিলাদ মাহফিলে কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ অংশ গ্রহন করেন। এরপর প্রধানমন্ত্রী নিজ বাস ভবনে কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ সদস্যদের নিয়ে মধ্যাহ্নভোজ সারেন। পরে প্রধানমন্ত্রীর বাসভবনে নবগঠিত কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের প্রথম সভা অনুষ্ঠিত হয়। ওই সভায় প্রধানমন্ত্রী ও কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সভাপতি শেখ হাসিনা সভাপতিত্ব করেন এবং দেশকে সামনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য নব-নির্বাচিত সদস্যদের নানা দিক-নির্দেশনা দেন।

এরআগে, বেলা ১১ টা ১০ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা টুঙ্গিপাড়া উপজেলা কমপ্লেক্স মাঠে নির্মিত হেলিপ্যাডে অবতরন করেন। এ সময় হেলিপ্যাডে কেন্দ্রীয় ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ তাঁকে স্বাগত জানান। পরে প্রধানমন্ত্রী বেলা ১১ টা ২০ মিনিটে হেলিপ্যাড থেকে সড়ক পথে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধী সৌধ কমপ্লেক্সে পৌঁছান। বেলা তিনটা ৪০ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী হেলিকপ্টার যোগে ঢাকার উদ্দেশ্যে টুঙ্গিপাড়া ত্যাগ করেন।