চট্টগ্রামে ভয়ঙ্কর রূপ নিচ্ছে করোনা

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাসে প্রাণ গেছে আরও ২০ জনের। ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যুতে ঢাকা বিভাগকে ছাড়িয়েছে চট্টগ্রাম। গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রাম বিভাগে মৃত্যুবরণ করেছেন ৮ জন, যেখানে ঢাকায় মাত্র চারজন।

এদিকে, চট্টগ্রাম বিভাগে প্রতিনিয়ত বাড়ছে রোগীর সংখ্যা। ইতোমধ্যে নারায়নগঞ্জের কাছাকাছি চলে এসেছে চট্টগ্রাম জেলার রোগীর সংখ্যা।

শনিবার (২৩ মে) দুপুরে করোনাভাইরাস বিষয়ক নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানান স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (মহাপরিচালকের দায়িত্বপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।

নাসিমা সুলতানা জানান, ২০ মৃতের ১৬ জনই পুরুষ, চারজন নারী। বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়- ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে দু’জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে তিনজন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে তিনজন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ৮ জন, ৬১ থেকে ৭০ বয়সী তিনজন এবং ৭১ থেকে ৮০ বছর বয়সী একজন মৃত্যুবরণ করেছেন।

স্থান বিশ্লেষণে দেখা যায়- ঢাকা বিভাগের মধ্যে চারজন, চট্টগ্রামে আট, রংপুর দুই, ময়মনসিংহে দুই, রাজশাহীতে দুই, সিলেটে এক এবং খুলনা বিভাগে একজন মৃত্যুবরণ করেছেন। ১৫ জন হাসপাতালে, চারজন বাড়িতে এবং একজনকে মৃত অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছে।

চট্টগ্রাম বিভাগের সবচেয়ে বেশি রোগী চট্টগ্রামে। শুক্রবার পর্যন্ত সেখানে রোগীর সংখ্যা ১২৪৪। এরপর আছে নোয়াখালী। সেখানে রোগীর সংখ্যা ২০৭।

লক্ষ্মীপুর জেলায় ১০৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। দেশের সর্বশেষ আক্রান্ত জেলা রাঙামাটিতে রোগীর সংখ্যা ৪৪।

খাগড়াছড়িতে ১৬ ও বান্দরবানে ৯। সবমিলিয়ে এ বিভাগে আক্রান্ত ১৬৪৮। যার বেশিরভাগই চট্টগ্রাম জেলায়।