সাকিব-তামিমদের আন্দোলন নিয়ে বিস্ফোরক মাশরাফি

বিসিবিতে জড়ো হয়ে সাকিব-তামিম-মুশফিকসহ জাতীয় পর্যায়ের প্রায় ৫০-৬০ জন ক্রিকেটার ১১ দফা দাবি পেশ করে বিসিবির কাছে। মিডিয়ার মাধ্যমে পেশ করা এই দাবিগুলো না মানা পর্যন্ত সব ধরনের ক্রিকেট বর্জনেরও ঘোষণা দিয়েছেন ক্রিকেটাররা।

সাকিব আল হাসান, তামিম ইকবাল, মুশফিকুর রহীম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদের মতো সিনিয়ররা থাকলেও কেবল ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা ছিলেন না।

মাশরাফি নেই কেন এই আন্দোলনে- শুরু থেকেই ছিল এই প্রশ্ন। কিন্তু মূল বিষয় হচ্ছে, ক্রিকেটারদের দাবি-দাওয়া সম্পর্কিত এই আন্দোলন কিংবা এর বিষয়বস্তু- কোনো কিছু সম্পর্কেই অবগত ছিলেন না মাশরাফি। অন্তত তিনি নিজেই এই দাবিটা করছেন। আজ রাত পৌনে ১১টার দিকে নিজের অফিসিয়াল ফেসবুকে দেয়া এক পোস্টে বিষয়টা ক্লিয়ার করেছেন জাতীয় দলের ওয়ানডে অধিনায়ক।

সাকিব-তামিমদের এই উদ্যোগ সম্পর্কে মোটেও অবগত ছিলেন না বলে দাবি করছেন তিনি। একই সঙ্গে আজ সাকিব-তামিমদের সঙ্গে উপস্থিত না থাকলেও তাদের ১১ দফা দাবির সঙ্গে একাত্মতা ঘোষণা করেন মাশরাফি। 

মাশরাফির ফেসবুক স্ট্যাটাস  

‘অনেকেই প্রশ্ন করছেন যে, দেশের ক্রিকেটের এমন একটি দিনে আমি কেন উপস্থিত ছিলাম না। আমার মনে হয়, প্রশ্নটি আমাকে না করে, ওদেরকে করাই শ্রেয়। এই উদ্যোগ সম্পর্কে আমি একদমই অবগত ছিলাম না। নিশ্চয়ই বেশ কিছুদিন ধরেই এটি নিয়ে ওদের আলোচনা ছিল, প্রক্রিয়া চলছিল; কিন্তু এ সম্পর্কে আমার কোনো ধারণাই ছিল না। সংবাদ সম্মেলন দেখে আমি ওদের পদক্ষেপ সম্পর্কে জানতে পেরেছি।

ক্রিকেটারদের নানা দাবির সঙ্গে আমি আগেও একাত্ম ছিলাম, এখনও আছি। আজকের পদক্ষেপ সম্পর্কে আগে থেকে জানতে পারলে অবশ্যই আমি থাকতাম।

মিডিয়ায় ওদের খবর দেখার পর থেকে হাজারবার আমার মাথায় এই প্রশ্ন এসেছে যে, কেন আমাকে জানানো হলো না। অনেকে আমার কাছে জানতেও চেয়েছেন। কিন্তু আমি নিজেও জানি না, কেন জানানো হয়নি।

তবে আমার উপস্থিত থাকা কিংবা না থাকার চেয়ে, ১১ দফা দাবি বাস্তবায়িত হওয়াই বড় কথা। সবকটি দাবিই ন্যায্য। ক্রিকেট ও ক্রিকেটারদের মঙ্গলের জন্য জরুরী। আমি মাশরাফী বিন মোর্ত্তজা, ১১ দফা দাবি শান্তিপুর্ন ভাবে বাস্তবায়িত হওয়ার পক্ষে আছি, থাকব।’