ইমরান খানকে ৪৮ ঘন্টার মধ্যে পদত্যাগের আল্টিমেটাম

পাকিস্তানে প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকে পদত্যাগের জন্য ৪৮ ঘন্টার সময় বেধে দিয়েছে জামিয়াত উলামা-ই-ইসলাম পার্টির প্রধান ফজলুর রহমান। এর অন্যথা হলে পরিস্থিতি আরও ভয়াবহ হবে বলে সরকারের প্রতি হুঁশিয়ারি জানিয়েছেন তিনি।

বৃহস্পতিবার (৭ নভেম্বর) রাতে ‘আজাদি মার্চ’ নামে চলমান এ আন্দোলনে বক্তৃতাকালে এমন আল্টিমেটাম দেন তিনি।

২০১৮ সালের নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগে ইমরান খানের উদ্দেশ্যে এ আল্টিমেটাম দেন তিনি। আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম থেকে এ তথ্য জানা যায়।

দ্য এক্সপ্রেস ট্রিবিউন সূত্রে জানাগেছে, অর্থনৈতিক দুর্ভোগের অভিযোগে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের পদত্যাগের দাবিতে এ বিক্ষোভের ডাক দিয়েছে দেশটির প্রভাবশালী ইসলামপন্থী রাজনৈতিক দল জমিয়তে উলেমা-ই-ইসলাম। দলটির প্রধান মাওলানা ফজলুর রহমানের ডাকে সাড়া দিয়ে রাজধানী ইসলামাবাদে ‘আজাদি মার্চে’ অংশ নিচ্ছেন হাজার হাজার বিক্ষোভকারী।

পরে আন্দোলনে দেশটির সাবেক প্রেসিডেন্ট আসিফ আলি জারদারি ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের অনুসারীসহ অন্যান্য সমমনা ধর্মীয় দলগুলোও অংশ নিয়েছে। কয়েকশ’ গাড়ি নিয়ে গত রবিবার এ বিক্ষোভ শুরু হয়। সরকার অনুমোদিত উন্মুক্ত স্থানে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থার মধ্যে অবস্থান নিয়েছে বিক্ষোভকারীরা। এখানে দলীয় পতাকা নাড়িয়ে স্লোগান দিচ্ছেন তারা।

জমিয়ত নেতা বলেন, আমাদের দাবি মেনে না নেওয়া পর্যন্ত আমরা সরব না। এই জনসমুদ্র এখানেই থেমে যাবে না। আগামীতে আমরা পুরো দেশ অচল করে দেব। সরকারের পদত্যাগ ছাড়া আমরা কিছুতেই ফিরে যাব না।

সরকারের পক্ষ থেকে বিভিন্নভাবে মাওলানা ডিজেলকে সমঝোতার টেবিলে বসানোর চেষ্টা চলছে। এর আগে ইমরান খান জানিয়েছেন, পদত্যাগ ছাড়া বিরোধীদের বাকি সব দাবি তিনি মেনে নেবেন। তারপরও আন্দোলন চলছে। ক্ষমতায় বসার পর এই প্রথম বড় কোনো সরকারবিরোধী আন্দোলনের মুখে পড়লেন ইমরান খান।