ইতালিতে ভয়ঙ্কর রূপ নিচ্ছে করোনাভাইরাস

প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) এখন পর্যন্ত দুই হাজার ৭১১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এতে আক্রান্ত হয়েছে ৮০ হাজার তিনশ ৮৬ জন। এখন পর্যন্ত এ ভাইরাসের বিস্তার ৪৩ দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়ে পড়েছে।

সম্প্রতি ইউরোপের মধ্যে ইতালিতেই নতুন করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব সবচেয়ে মারাত্মক রূপ নিয়েছে, দেশটিতে তিন শতাধিক লোক কভিড-১৯ নাম পাওয়া এই ভাইরাসজনিত রোগে আক্রান্ত হয়েছেন এবং তাদের মধ্যে ১১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

ইতালি থেকে দেশে ফেরার পর ক্রোয়েশিয়ার এক ব্যক্তির শরীরেও সংক্রমণ ধরা পড়েছে। বলকান অঞ্চলে করোনাভাইরাস আক্রান্ত প্রথম ব্যক্তি তিনি।

স্পেনের ক্যানারি দ্বীপের তেনেরিফে একটি হোটেলে ওঠা এক ইতালীয় চিকিৎসক ও তার স্ত্রীর প্রাথমিক স্বাস্থ্য পরীক্ষায় করোনাভাইরাস সংক্রমণ ধরা পড়ার পর হোটেলটি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

হোটেলের ভেতরে কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়েছে অতিথি হিসাবে আসা হাজারেরও বেশি পর্যটককে। স্পেন কর্তৃপক্ষ তাদের ভাইরাস পরীক্ষা করে দেখছে।

ইতালির অন্তত বারোটি শহরের ৫০ হাজারের বেশি বাসিন্দাকে ‘গৃহবন্দি’ থাকতে বলা হয়েছে। বন্ধ দোকানপাট, স্কুল-কলেজ। বন্ধ হয়েছে ভেনিস কার্নিভাল। যে সমস্ত এলাকায় সংক্রমণ ছড়িয়েছে, সেখানে কেউ গেলে বা সেই এলাকা থেকে বেরোলে জরিমানা করা হবে বলে জানিয়েছে প্রশাসন।

এদিকে, লাতিন আমেরিকায় নতুন করোনাভাইরাস শনাক্তের পরীক্ষায় প্রথমবারের মতো পজিটিভ একজনকে পাওয়া গেছে, ব্রাজিলের ওই নাগরিক মাত্রই ইতালি থেকে ফিরেছেন।

বিবিসি জানায়, অস্ট্রিয়া, ক্রোয়েশিয়া ও সুইজারল্যান্ড ইতালি ফেরত ব্যক্তিদের মধ্যে সংক্রমণ শনাক্ত করার কথা জানিয়েছে, আফ্রিকার দেশ আলজেরিয়াও একই কথা জানিয়েছে।

ইরানেও আতঙ্ক সৃষ্টি করেছে করোনাভাইরাস। দেশটিতে অন্তত ৯৫ জন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন, মারা গেছেন অন্তত ১৬ জন। তবে, সরকারি এই হিসাবের সঙ্গে একমত নয় পশ্চিমা গণমাধ্যমগুলো। তাদের দাবি মধ্যপ্রাচ্যের দেশটিতে করোনাভাইরাসে অর্ধশতাধিক মানুষ প্রাণ হারিয়েছেন।

এছাড়া, জাপানের ইয়োকোহামা বন্দরে কোয়ারেন্টাইনে রাখা প্রমোদতরী ডায়মন্ড প্রিন্সেসের ৬৯১ যাত্রীর শরীরে প্রাণঘাতী নতুন ভাইরাস ধরা পড়েছে। ইতোমধ্যে জাহাজটির অন্তত চার যাত্রী মারা গেছেন।

ইতালিতে ৩৯৩ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন, মারা গেছেন ১১ জন। হংকংয়ে আক্রান্ত ৮৫, মৃত্যু দুইজনের; জাপানে আক্রান্ত ১৫৯, মৃত্যু একজনের; সিঙ্গাপুরে ৯১ জন করোনায় আক্রান্ত; যুক্তরাষ্ট্রে ৫৩ জনের শরীরে এই ভাইরাস পাওয়া গেছে।